বৃহস্পতিবার ১৪ ডিসেম্বর ২০১৭ || সময়- ১:৩৪ am
শাকিবের আপত্তির মুখে তিনবার গর্ভপাত করেছি: অপু
মঙ্গলবার ৫ ডিসেম্বর ২০১৭ , ৭:১৫ pm
Apu_prohor_288x259

প্রহরনিউজ, বিনোদন: অবশেষে অপু বিশ্বাসকে ডিভোর্স লেটার পাঠিয়েছেন শাকিব খান। কলকাতা থেকে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে শাকিব খান বলেন, ‘বৃহস্পতিবার কলকাতা আশার সময় আমি ডিভোর্স পেপারে সাক্ষর করে এসেছি। অন্যদিকে অপুর অভিযোগ-সন্তানের জন্ম হোক তা শাকিব চায়নি। ‘জয়ের জন্ম নিয়েই শাকিবের সঙ্গে আমার সম্পর্কের অবনতি ঘটে। জয়ের জন্মের আগে শাকিবের আপত্তির মুখে তিনবার গর্ভপাত করেছি। শাকিবের কারণে আমি আমার নাম অপু ইসলাম খান বলে প্রকাশ করতে পারিনি।’

ডিভোর্সের চিঠি নিয়ে  কথা বলতে গেলে মুঠোফোনে এভাবেই জানালেন অপু বিশ্বাস। সোমবার (৪ ডিসেম্বর) সারাদিন সাংবাদিকদের সাথে কথা না বললেও আজ তাকে ফোনে পাওয়া গেল।
শাকিব খান-অপু বিশ্বাস

২০০৬ সালে  ‘কোটি টাকার কাবিন’ চলচ্চিত্রের মধ্য দিয়ে শাকিব-অপুর জুটি গড়ে ওঠে। ২০০৮ সালে তাদের বিয়ে হয়। গত বছরের ২৭ সেপ্টেম্বর কলকাতায় তাদের পুত্রসন্তানের জন্ম হয়। অবশেষে অপু বিশ্বাস মুখ খুলতে শুরু করেছেন।

অপু বলেন, বিয়ের ব্যাপরটি ৮ বছর ও জয় গর্ভে আসার পর থেকে টিভি চ্যানেলে তা প্রকাশ করা পর্যন্ত দেড় বছর শাকিবের নির্দেশে বিয়ে ও সন্তানের বিষয়টি গোপন রাখতে হয়েছে। আমার ব্যাংক অ্যাকাউন্ট, পাসপোর্ট থেকে শুরু করে সব জায়গায় 'অপু বিশ্বাস' নাম রয়ে গেছে।

ডিভোর্সে উল্লেখিত অভিযোগ অনুযায়ী, অপু তার পছন্দ অপছন্দকে গুরুত্ব দিচ্ছিলেন না। কারণ হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে, অপু শাকিবের পছন্দের সীমার মধ্যে থাকেননি। সম্প্রতি তাঁদের সন্তানকে গৃহপরিচারিকার কাছে রেখে দেশের বাইরে যান অপু। এ ব্যাপারে অপুর কাছ থেকে তিনি কোনো সন্তোষজনক জবাব পাননি। শাকিব ধরে নিয়েছেন, অপু তাঁর সঙ্গে সংসার করতে চান না।

শাকিবের তালাকের নোটিশে বলা হয়েছে, ছেলেকে তালাবন্ধ করে রাখার খবর শুনেই অপুর বাসায় ছুটে যান তিনি। কিন্তু সন্তানকে উদ্ধার করতে না পেরে পরে থানায় জিডি করেন।