সোমবার ২২ জানুয়ারী ২০১৮ || সময়- ১২:৫৭ pm
মৌলভীবাজারের ২ রাজাকারের ফাঁসি, ৩ জনের আমৃত্যু কারাদণ্ড
বুধবার ১০ জানুয়ারী ২০১৮ , ১২:০৫ pm
International Crimes

প্রহরনিউজ, অপরাধ: মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় মৌলভীবাজারের শামসুল হোসেন তরফদারসহ পাঁচ আসামীর মধ্যে ২ জনের ফাঁসি ও তিন জনের আমৃত্যু কারাদণ্ড দিয়েছে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল। আজ বুধবার (১০ জানুয়ারি) সকালে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের ৩ বিচারপতির বেঞ্চে এ রায় ঘোষণা করা হয়।

এর মধ্যে নেছার আলী ও ওজায়ের আহমেদ চৌধুরীকে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দিয়েছেন ট্রাইব্যুনাল। আর শামসুল আলম চৌধুরী, মোবারক ও ইউনুছকে আমৃত্যু কারাদণ্ডাদেশ পেয়েছেন। তাঁদের মধ্যে ইউনুস আহমেদ ও ওজায়ের আহমেদ চৌধুরী কারাগারে আছেন। বাকিরা পলাতক।

এর আগে গত ২০ নভেম্বর উভয় পক্ষের শুনানি শেষে মামলাটি রায়ের জন্য অপেক্ষমাণ রাখেন আদালত। এই মামলার আসামিরা হচ্ছেন মৌলভীবাজারের সামছুল হোসেন তরফদার ওরফে আশরাফ, মো. নেছার আলী, ইউনুছ আহমেদ, ওজায়ের আহমেদ চৌধুরী ও মোবারক মিয়া। তাদের মধ্যে ইউনুছ আহমেদ ও ওজায়ের আহমেদ চৌধুরী কারাগারে বাকিরা পলাতক।

২০১৬ সালের ২৬ মে এই পাঁচজনের বিরুদ্ধে ট্রাইব্যুনালে আনুষ্ঠানিক অভিযোগ দাখিল করা হয়। ২০১৪ সালের ১২ অক্টোবর আসামিদের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করে তদন্ত সংস্থা। গত বছরের ১৩ অক্টোবর আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল আসামিদের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করলে ওই দিন বিকেলেই রাজনগর উপজেলার গয়াসপুর গ্রামের ওজায়ের আহমেদ চৌধুরীকে মৌলভীবাজার শহরের চৌমোহনা থেকে ও সোনাটিকি গ্রামের মৌলভি ইউনুস আহমেদকে তার বাড়ি থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

এরপর ২০ জানুয়ারি তাঁদের বিরুদ্ধে তদন্তের চূড়ান্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের তদন্ত সংস্থা। একাত্তরে মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় মানবতাবিরোধী অপরাধের সঙ্গে জড়িতদের বিচারের জন্য ২০১০ সালে গঠন করা হয় আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল। ইতোমধ্যে এই ট্রাইব্যুনালে ২৯টি রায় ঘোষণা হয়েছে। আর এটি হবে যুদ্ধাপরাধসংক্রান্ত ৩০তম মামলার রায় ঘোষণা। প্রথমে দুটি ট্রাইব্যুনাল থাকলেও পরে মামলার সংখ্যা কমে আসায় একটি ট্রাইব্যুনাল করা হয়।

আসামিদের বিরুদ্ধে মুক্তিযুদ্ধের সময় হত্যা, গণহত্যা, আটক, অগ্নিসংযোগ ও লুটপাটের পাঁচটি অভিযোগ ছিল।