মঙ্গলবার ২৩ জানুয়ারী ২০১৮ || সময়- ৩:০১ pm
অবশেষে চলে গেলেন মাওলানা সাদ
শনিবার ১৩ জানুয়ারী ২০১৮ , ১০:৫৪ am
sad_prohor

প্রহরনিউজ, ধর্ম: দিল্লির উদ্দেশে বিমানবন্দরে পৌঁছেছেন নিযামুদ্দীন মারকাযের আমির মাওলানা সাদ। সকাল আটটায় তিনি কাকরাইল মসজিদ থেকে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের দিকে রওনা দেন।

নিযামুদ্দীন মারকাযের আমির মাওলানা সাদ দিল্লির উদ্দেশে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছেছেন। আজ সকাল আটটায় তিনি কাকরাইল মসজিদ থেকে বিমানবন্দরের দিকে রওনা দেন।

বেলা ১১ টায় তার বিমান শিডিউল নির্ধারিত থাকলেও আবহাওয়া জনিত কারণে তিনি এখনো বিমানবন্দরে অবস্থান করছেন।
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী তিনি বিশ্ব ইজতেমায় যোগ না দিয়েই দেশে ফিরে যাচ্ছেন। মাওলানা সাদের বিরুদ্ধে আলেম ওলামা ও তাবলীগ জামায়াতের একাংশের বিরোধিতার মুখেই তিনি দেশে ফিরতে বাধ্য হচ্ছেন।

বিশ্ব ইজতিমায় অংশগ্রহণ করার জন্য মাওলানা সাদ গত ১০ জানুয়ারি ঢাকায় আসেন। তবে তার কিছু আপত্তিকর বক্তব্যের জের ধরে আলেম ওলামা ও তাবলিগের অনেক সাথীর প্রতিবাদের মুখে কাকরাইল মারকাজ মসজিদে আনা হয়। ১১ জানুয়ারি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ে এক বৈঠকে তিনি ইজতিমায় অংশ নিতে পারবেন না বলে সিদ্ধান্ত হয়।

গতকাল শুক্রবার দিল্লির নিজামুদ্দিন মারকাজের মুরব্বি মাওলানা সা’দ কান্ধলবি কাকরাইল মারকাজ মসজিদে জুমার নামাজের আগে দীর্ঘ বয়ান করেন।
অপরদিকে শুক্রবার বাদ ফজর জর্দানের মাওলানা শায়েখ ওমর খতিবের আম বয়ানের মধ্য দিয়ে তাবলিগ জামাতের আয়োজনে বৃহত্তম মুসলিম জমায়েত ইজতেমার আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম শুরু হয়। তিনি তার বয়ানে দাওয়াত ও তাবলিগের গুরুত্ব তুলে ধরেন এবং সর্বস্ব কুরবানি করে নবীওয়ালা এই কাজ করে যাওয়ার আহ্বান জানান।

দেশ বিদেশের তাবলিগের সাথী এবং ঢাকাসহ আশপাশের জেলার লক্ষ লক্ষ ধর্মপ্রাণ মুসল্লিদের অংশগ্রহণের মাধ্যমে ইজতেমা ময়দানে জুমার নামাজ অনুষ্ঠিত হয়। জুমার নামাজের ইমামতি করেন রাজধানীর কাকরাইল মারকাজের শুরা সদস্য হাফেজ মাওলানা মোহাম্মদ জুবায়ের। তীব্র শীতকে উপেক্ষা করে ধর্মপ্রাণ মুসল্লিদের অংশগ্রহণে ইজতেমা ময়দান মুখরিত হয়ে আছে।